আবহাওয়া বিশ্বঘড়ি মুদ্রাবাজার বাংলা দেখা না গেলে                    
শিরোনাম :
শেখ হাসিনার অধীনেই আগামী বছর ডিসেম্বরের শেষ সপ্তাহে জাতীয় নির্বাচন!      হবিগঞ্জ ২ আসনে ধানের শীষের প্রার্থী আহমদ আলী মুকিব      অছাত্র ও চিহ্নিত শিবির কর্মীকে ছাত্রলীগের সভাপতি করার প্রতিবাদে ১১ ছাত্রলীগ নেতার পদত্যাগ       রাখাইনের জঙ্গলে লুকিয়ে থাকা রোহিঙ্গারা পানি আর ঘাস খেয়ে বেঁচে আছে: রয়টার্স      উখিয়া ও টেকনাফে সুপারি বাম্পার ফলনে চাষিদের মুখে হাসি      দিনাজপুর-৪ (চিরিরবন্দর-খানসামা) মাঠ গরমে ব্যস্ত নতুনরা      কুমিল্লায় মুক্তিযোদ্ধার বিরুদ্ধে ৫ পরিবারকে মামলা দিয়ে হয়রানির অভিযোগ      
উখিয়া হাসপাতালে অনিয়মের অভিযোগ, ভোগান্তিতে রোগীরা
কায়সার হামিদ মানিক
Published : Saturday, 23 July, 2016 at 5:42 PM, Count : 349
উখিয়া হাসপাতালে অনিয়মের অভিযোগ, ভোগান্তিতে রোগীরাউখিয়া (কক্সবাজার): উখিয়া সরকারী হাসপাতালের অনিয়ম, দুর্নীতি, কালো বাজারে ঔষুধ বিক্রি সহ নানা দূর্ভোগের কথা নতুন নয়। কিন্ত এখন তা ভয়াবহ আকার ধারন করেছে। ডাক্তার,কর্মচারী সিন্ডিকেট যে যার ধান্ধায় ব্যাস্ত। রোগীদের প্রতি খেয়াল রাখার সময় নেই। পর্যাপ্ত পরিমান সীট থাকলেও রোগীদের জায়গা হচ্ছে হাসপাতালের মেজেতে। তাছাড়া সরকারী ঔষুধ যাচ্ছে কালোবাজারে। দ্বায়িত্বরত ডাক্তারের বক্তব্য, কয়েকমাস ধরে হাসপাতালে সরকারী ভাবে ঔষুধ দেওয়া হচ্ছেনা। ২৩ জুলাই হাসপাতালে সরজমিন ১ ঘন্টা অবস্থান করে দেখা গেছে হাসপাতালে পর্যাপ্ত সিট রয়েছে,অথচ রোগীদের চিকিৎসা সেবা দেওয়া হচ্ছে হাসপাতালের অপরিচ্ছন্ন মেজেতে।কি অমানবিক দৃশ্য! জানা গেছে, হাসপাতালের ডাক্তার/কর্মচারী সিন্ডিকেটকে ম্যানেজ করতে না পারায় গরীব রোগীদের মেজেতে চিকিৎসা নিতে হচ্ছে।এছাড়াও রোগীদের অভিযোগ,প্রতিটি ঔষুধ  বাইরের ফার্মেসী থেকে ক্রয় করে নিতে হচ্ছে। সকালে একজন ডাক্তার তাদের দেখার পর সারাদিন আর কোন ডাক্তারের দেখা মেলে না,সরকারী ভাবে দেওয়া খাবারও খুব নিন্মমানের। রোগীদের ভাষায়,সরকারী হাসপাতাল হলেও সবকিছু কিনে নিতে হচ্ছে, ডাক্তাররা যে কোন পরীক্ষার জন্য পাটিয়ে দিচ্ছে কোটবাজারের অরজিন হাসপাতালে। পরিদর্শনকালে বেশকিছু রোগী বাইরে অপেক্ষমান থাকলেও জরুরি বিভাগে দ্বায়িত্বরত ডাক্তার কমলিকা খোশগল্পে ব্যাস্ত তার সহকারী ডাক্তার রহমত উল্লাহর সাথে। হাসপাতালের মেজেতে রোগী ও রোগীদের ঔষুধ না পাওয়ার ব্যাপারে ডাক্তার কমলিকার কাছে জানতে চাইলে তার কাছ থেকে কথা কেড়ে নিয়ে তার সহকারী ডাক্তার রহমত উল্লাহ  বলেন,আসলে সিট সবাইকে দেওয়া যায়না। তবুও আমরা পর্যাপ্ত সিট দিচ্ছি।অন্যন্য হাসপাতালে তাও দেওয়া হচ্ছেনা। সরকারী ঔষুধের ব্যাপারে তিনি বলেন,সরকারীভাবে কয়েকমাস ধরে কোন  ঔষুধ বরাদ্ধ নেই, তাই রোগীদের বাইরের ফার্মেসী থেকে ঔষুধ কিনে নেওয়ার পরামর্শ দেওয়া হচ্ছে।







স্বাস্থ্য পাতার আরও খবর
আজকের রাশিচক্র
সম্পাদক : ইউসুফ আহমেদ (তুহিন)

৭৯/বি, এভিনিউ-১, ব্লক-বি, মিরপুর-১২, ঢাকা-১২২৬, বাংলাদেশ।
ফোন : +৮৮-০২-৯০১৫৫৬৬, মোবাইল : ০১৯১৫-৭৮৪২৬৪, ই-মেইল : editor@natun-barta.com